মার্কিন সহায়তায় আইসিস এর 41 টি ঘাঁটি ধ্বংস করল সিরিয়ান আর্মি

Spread the love

মার্কিন মদতপুষ্ট সিরিয়ান আর্মি এক সাংঘাতিক যুদ্ধের মাধ্যমে ইসলামিক স্টেটের দখলে থাকা 41টি অংশ পুনর্দখল করে আর পূর্ব সিরিয়ার যে অংশে তাদের শেষ ঘাঁটি ছিল তা ধ্বংস করে, রবিবার একজন মুখপাত্র জানান।

সিরিয়ান ডেমোক্রেটিক ফোর্সের মুখপাত্র মুস্তাফা বালি জানান কুর্দিশ গনতান্ত্রিক সেনা রাত্রিবেলা অগ্রসর হয় এবং আইসিস সেনা দের থেকে শেষ এলাকা দখল করে ফেলে রবিবারের মধ্যে।

শেষ লড়াই ছিল বাঘৌজ গ্রাম খালি করা, গত কয়েক সপ্তাহ ধরে Deir-el-Zour এর পূর্ব বিভাগের বাঘৌজ গ্রাম থেকে প্রায় 20,000 গ্রামবাসীদের অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার কাজ শেষ হয়েছে।

বালি জানান রবিবার বাঘৌজে ভারী গুলিবর্ষন চলছে তবে আইসিস প্রতিআক্রমণ শুরুতেই বানচাল করা গেছে। কতক্ষন এই যুদ্ধ চলতে পারে সে ব্যাপারে উনি কিছু জানাননি। সিরিয়ান আর্মিকে এগিয়ে যেতে সাহায্য করছে আমেরিকান যুদ্ধবিমানগুলি।

আমেরিকান প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বুধবার পূর্বাভাস দিয়েছেন যে ইসলামিক স্টেট দল ইরাক ও সিরিয়ায় তাদের ক্ষমতায় রাখা সব অঞ্চলগুলি আগামী সপ্তাহের মধ্যে হারাবে।

আর সেটা উগ্রবাদীদের বিরুদ্ধে এই চার বছর ব্যাপী যুদ্ধের শেষ বলে গণ্য হবে। যেখানে উগ্রবাদী দলটি সিরিয়া ও ইরাকের বড় ভৌগলিক অংশকে দখল করে 2014 সাল থেকে স্বঘোষিত খলিফা শাসিত অঞ্চল বলে দাবি করছিল।

আমেরিকান কর্মকর্তারা জানিয়েছেন চলতি সপ্তাহে আইএস তাদের 99.5 শতাংশ অঞ্চল হারিয়েছে এবং সিরিয়ায় মাত্র 5 বর্গকিলোমিটার বা 2বর্গমাইল অঞ্চল তাদের দখলে রয়েছে, যেখানে তাদের সিংঘভাগ যোদ্ধারা একত্র হয়েছে। তবে কর্মীরা ও স্থানীয় বাসিন্দারা বলছেন সিরিয়া ও ইরাকে এখনও আইএস এর স্লিপার সেলরা রয়েছে যারা অভ্যুত্থানের জন্য তৈরি হচ্ছে। আমেরিকান মিলিটারি হুঁশিয়ারি দিয়েছে যে সেনা ও সন্ত্রাস মোকাবিলা কিছুটা আলগা হলেই আইএস আবার প্রত্যাবর্তন করতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *