মার্কিন সরকারের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করতে চলেছে হুয়াওয়ে

Spread the love

চীনা টেলিকম কোম্পানী হুয়াওয়ে মার্কিন নিয়মাবলীর জন্য বিরক্তি প্রকাশ করেছে, এবং ট্রাম্প সরাকারের বিরুদ্ধে সরাসরি সংঘাতে গেছে। সংবাদপত্র জানিয়েছে ট্রাম্প সরকার, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল এজেন্সিগুলির হুয়াওয়ের পণ্য কেনার উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করে। এমতাবস্থায় চীনা সংস্থাটি আমেরিকান সরকারের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করতে চায়।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, হুয়াওয়ে এই মামলায় দাবী করবে যে, জাতীয় প্রতিরক্ষা অনুমোদন আইনটি বিনা বিচারে একক ব্যক্তি বা গোষ্ঠীকে  দোষী সাব্যস্ত করছে যা মার্কিন সংবিধানকে লঙ্ঘন করে। আগস্ট মাসে গৃহীত আইনটি হুয়াওয়ে এবং তার ছোট চীনা প্রতিদ্বন্দ্বী জেডটিই প্রযুক্তির ব্যবহার থেকে সরকারী সংস্থাগুলিকে বিশেষভাবে বিরত রাখে।

প্রযুক্তির উপর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের মধ্যে সংঘর্ষের সর্বশেষতম মোড়।

মার্কিন সরকারের  দাবী অনুযায়ী হুয়াওয়ের পণ্যগুলি গুপ্তচরবৃত্তির জন্য চীনা গুপ্তচর সংস্থা ব্যবহার করতে পারে। এই দাবী নস্যাৎ করে দিয়ে হুয়াওয়ে প্রতিষ্ঠাতা রেন ঝাংফাই জানুয়ারীতে বলেছেন যে কোম্পানি তার গ্রাহকদের ক্ষতি করবে না।

ওয়াশিংটন একটা আন্তর্জাতিক প্রচার চালিয়ে মার্কিন মিত্র দেশগুলিকে চাপ দিচ্ছে  চীনা কোম্পানিগুলিকে তাদের 5 জি নেটওয়ার্কে নিষিদ্ধ করার জন্য।

গত মাসে ইউরোপের এক বক্তৃতায় মার্কিন উপরাষ্ট্রপতি মাইক পেস বলেন, তার দেশ হুয়াওয়ের হুমকি সম্পর্কে “খুব স্পষ্ট” ছিল। “আমাদের অবশ্যই গুরুত্বপূর্ণ টেলিকম পরিকাঠামো রক্ষা করতে হবে এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আমাদের সকল নিরাপত্তা সহযোগীকে সতর্ক থাকতে এবং আমাদের যোগাযোগ প্রযুক্তি বা জাতীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থাগুলির অখণ্ডতার সাথে আপস করা কোনও উদ্যোগকে বাতিল করতে আহ্বান জানাচ্ছে”।

হুয়াওয়ের চিফ ফিনানশিয়াল অফিসার, মেন ওয়াংজো, ডিসেম্বর মাসে ভ্যানকুভারে আটক হন। মার্কিন কর্তৃপক্ষের অনুরোধে কানাডিয়ান পুলিশ মেনকে গ্রেফতার করেছে, যারা মেন এবং হুয়াওয়েকে ইরানে নিষিদ্ধকরণ অমান্য ও ব্যাংক জালিয়াতির জন্য  হিউয়াই সংস্থাকে অভিযুক্ত করেছে। হুয়াওয়ে ও মেন এই অভিযোগ  অস্বীকার করে।

প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য, চীনা কর্তৃপক্ষ দুটি কানাডীয়কে আটক করে। একজনকে চীনের জাতীয় নিরাপত্তা বিপন্ন করে এমন কার্যকলাপের সন্দেহের কারণে এবং অন্যজনকে মাদক পাচারের জন্য মৃত্যুদণ্ড দেয়। 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *