আগামী জুলাই মাসে চন্দ্রযান 2 উৎক্ষেপণ করা হবে

Spread the love

বহু প্রতীক্ষিত ভারতীয় মহাকাশ অভিযান চন্দ্রায়ণ 2 বিলম্বিত হয়েছে এবং আগামী জুলাই মাসে এর উৎক্ষেপণ স্থির করা হয়েছে। যদিও গত জানুয়ারি মাসে এর উৎক্ষেপণ স্থির হয়েছিল।

ভারতীয় স্পেস রিসার্চ অর্গানাইজেশন ঘোষণা করেছে যে চাঁদে ভারতের দ্বিতীয় মিশন 9 জুলাই থেকে 16 জুলাইয়ের মধ্যে উৎক্ষেপণ করা হবে এবং আগামী 6 সেপ্টেম্বর তা চাঁদে পৌছনোর কথা। সংগঠনের পক্ষ থেকে 2018 সালের অগস্ট মাসে জানানো হয়েছিল যে,
2019 সালের জানুয়ারি মাসে চন্দ্রযান 2 উৎক্ষেপিত হবে এবং এই মিশনকে ইসরো কর্তৃক সবথেকে জটিলতম মিশন বলে আখ্যা দেওয়া হয়েছিল।

অন্ধ্রপ্রদেশের শ্রীহরিকোটার সতীশ ধাওয়ান স্পেস সেন্টার থেকে এই মিশনের জন্য একটা
GSLV Mk-III রকেট উৎক্ষেপণ করা হবে।

স্পেস এজেন্সি একটি বিবৃতিতে জানিয়েছে যে মিশনটির সমস্ত মডিউলগুলি – অর্বিটার, ল্যান্ডার এবং রোভার জুলাইয়ের মধ্যে তৈরি হয়ে যাবে। এই মিশনের লক্ষ্য হল চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে অবতরণ করা।

মিডিয়াকে দেওয়া একটা বিবৃতিতে ইসরো জানায়, “অর্বিটর এবং ল্যান্ডার মডিউলগুলি যান্ত্রিকভাবে ইন্টারফেস করা হবে এবং একত্রিত মডিউল হিসাবে স্ট্যাক করা হবে এবং GSLV MK-III লঞ্চের ভেতর ঢুকিয়ে দেওয়া হবে।” “রোভার ল্যান্ডারের ভিতরে রাখা হবে।
GSLV MK-III মাধ্যমে পৃথিবী আবদ্ধ কক্ষপথে পৌছনোর পর, ইন্টিগ্রেটেড মডিউল অরবিটার প্রম্পলসন মডিউল ব্যবহার করে চাঁদের কক্ষপথে পৌঁছবে। “

“পরবর্তীকালে, ল্যান্ডার অর্বিটর থেকে আলাদা হয়ে পূর্বনির্ধারিত চাঁদের দক্ষিণ মেরুর কাছাকাছি জায়গায় সফট ল্যান্ড করবে,” বিবৃতিতে যোগ করা হয়েছে। “উপরন্তু, চন্দ্র পৃষ্ঠের বৈজ্ঞানিক পরীক্ষা চালিয়ে যাওয়ার জন্য রোভারটি চালু হবে। বৈজ্ঞানিক পরীক্ষা চালিয়ে যাওয়ার জন্য ল্যান্ডার ও অরবিটারে প্রয়োজনীয় জন্ত্রপাতি মাউন্ট করা হয় ” এজেন্সির তরফ থেকে জানানো হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *